চাটমোহরে দুই বোনকে শ্লীলতাহানীর অপচেষ্টার অভিযোগে মামলা, সাবেক ইউপি সদস্য গ্রেফতার

ডেইলি ভিশন টুয়েন্টিফোর অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশিত: ৬:৩৬ অপরাহ্ণ, মে ২০, ২০২১

চাটমোহর প্রতিনিধি
পাবনার চাটমোহরে দুই বোনকে শ্লীলতাহানীর অপচেষ্টার অভিযোগে পুলিশ সাবেক এক ইউপি সদস্যকে গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতারকৃত হলেন উপজেলার হান্ডিয়াল ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের সাবেক মেম্বার ও বাঘলবাড়ি গ্রামের আব্দুল বেপারীর ছেলে আঃ সালাম (৫০)। ওই গ্রামের আবু হানিফের স্ত্রী সবিতা খাতুন জয়নব বুধবার (১৯ মে) রাতে চাটমোহর থানায় বাঘলবাড়ি গ্রামের ঈমান অলী সরদারের ছেলে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতা ডাঃ আঃ সামাদ সরদার (৫৫) ও আঃ সালামকে বিবাদী করে মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়েরের পর পুলিশ আঃ সালামকে আটক করে। পলাতক রয়েছে আঃ সামাদ সরদার।
অভিযোগে জানা গেছে,আঃ সালাম ও আঃ সামাদ বাঘলবাড়ি গ্রামের মৃত আবু তালেবের ২ মেয়ে হালিমা খাতুন (৩৫) ও সবিতা খাতুন জয়নব (৩২) কে দীর্ঘদিন ধরে কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছিল। গত ১৫ মে রাত আনুমানিক ১০টার দিকে দুইজন জয়নবের বাড়িতে গিয়ে ঘরের দরজা খুলতে বলেন। জয়নব বিষয়টি তার ভাই রবিউলকে মোবাইল ফোনে জানালে রবিউল দরজা খুলতে বলেন। দরজা খোলার পর আঃ সালাম ও আঃ সামাদ দুই বোনকে মুখ চেপে ধরে শ্লীলতাহানীর অপচেষ্টা চালায়। এরমধ্যেই রবিউলসহ অন্যরা এসে তাদেরকে আটক করেন। বিষয়টি এলাকার প্রধানরা মীমাংসার কথা বলে দুইজনকে ছাড়িয়ে নিয়ে যায়। কিন্তু স্থানয়িভাবে বিচার না পেয়ে গত ১৭ মে জয়নব সহকারী পুলিশ সুপার (চাটমোহর সার্কেল) সজীব শাহরীনের দপ্তরে লিভিত অভিযোগ দায়ের করেন। এরপর ১৯ মে রাতে চাটমোহর থানায় মামলা দায়ের হয়।
চাটমোহর থানার ওসি মোঃ আমিনুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,মামলা দায়ের হওয়ার পর পুলিশ অভিযান চালিয়ে একজনকে গ্রেফতার করেছে। অপর আসামীকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। গ্রেফতারকৃত আঃ সালামকে বৃহস্পতিবার জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।